মিয়ানমারের গণহত্যা : অস্ট্রেলিয়ার মেলবোর্নে বিশেষ আলোকচিত্র প্রদর্শনী

মিয়ানমারের গণহত্যা : অস্ট্রেলিয়ার মেলবোর্নে বিশেষ আলোকচিত্র প্রদর্শনী

‘ফিল্মস ফর পিস ফাউন্ডেশন ’‘ব্রুটালিটি এগেইনস্ট হিউম্যানিটি’ শিরোনামে অস্ট্রেলিয়ার মেলবোর্নের উইন্ডহ্যাম পার্ক কমিউনিটি সেন্টারে ৬ জানুয়ারী ২০১৮ এই বিশেষ প্রদর্শনীর আয়োজন করেছিল । মেলবোর্নের বাংলাদেশীদের সবচেয়ে বড় সংগঠন ভিক্টোরিয়ান বাংলাদেশী কমিউনিটি ফাউন্ডেশন (VBCF), জবস ফর বাংলাদেশী অস্ট্রেলিয়ান’র জুবায়দুল জেকব, এবং স্থানীয় আলোকচিত্রী ইমরান আবুল কাশেমের সহযোগিতায় এই বিশেষ প্রদর্শনীটি হয়েছে। বিকাল ৪টা থেকে ৮টা পর্যন্ত প্রদর্শনীর ব্যবস্থা ছিল। “শান্তির জন্য চলচ্চিত্র” শিরোনামে এশিয়ার প্রথম আলোকচিত্র এবং চলচ্চিত্র নির্ভর শান্তি ও মানবাধিকার প্রতিষ্ঠার অলাভজনক প্রতিষ্ঠান ফিল্মস ফর পিস ফাউন্ডেশন ।

সম্প্রতি অস্ট্রেলিয়া প্রবাসী আলোকচিত্রশিল্পী সালাহউদ্দিন আহমদসহ ফিল্মস ফর পিস ফাউন্ডেশন দলটি উখিয়া থেকে শাহপরীর দ্বীপ পর্যন্ত বিভিন্ন স্থানে অবস্থিত রোহিঙ্গা ক্যাম্প সরেজমিনে পরিদর্শন করে রোহিঙ্গাদের বর্তমান অবস্থা আলোকচিত্র ও চলচ্চিত্রে ধারণ করেছেন।

চারটি মূল উদ্দেশ্য নিয়ে আলোকচিত্র প্রদর্শনীটি আয়োজন করেছে বলে জানায় ফিল্মস ফর পিস ফাউন্ডেশন।
১. বিশ্বব্যাপী প্রচার-প্রচারণা
২. রোহিঙ্গাদের উপর বর্বরোচিত অত্যাচারকে গণহত্যার স্বীকৃতি প্রদান গণহত্যার সাথে জড়িতদের বিচার
৩. রোহিঙ্গাদের গণহত্যার ন্যায়বিচার প্রদানসহ যথাযোগ্য মর্যাদায় স্বদেশ পত্তাবর্তন ও পুনর্বাসন
৪. তহবিল সংগ্রহ করা

এই আলোকচিত্র প্রদর্শনীতে ৪০টি আলোকচিত্র প্রদর্শিত হয়েছে । আলোকচিত্র প্রদর্শনীতে মূলত উখিয়া এবং টেকনাফের বিভিন্ন স্থানে অবস্থানরত লাখো রোহিঙ্গাদের উপর মিয়ানমার সেনাবাহিনীর নির্মম অত্যাচারের করুন কাহিনী এবং বর্তমান অবস্থা উঠে এসেছে।

অনুষ্ঠানে একটি গোল-টেবিল বৈঠক এর ব্যবস্থা ছিল । বাংলাদেশী কমিউনিটি এবং অস্ট্রেলিয়ান নাগরিক সহ বিভিন্ন পেশাজীবীর সকল মানুষের সমাগম দেখা গিয়েছে এই আলোকচিত্র প্রদর্শনীতে। এই প্রদর্শনীতে সিটি অভ ওয়াইন্ডাম এর ডেপুটি মেয়র জনাব ওয়াল্টার ভিলাগনজালো , VBCF এর সদ্য নির্বাচিত প্রেসিডেন্ট নুশরাত ইসলাম বর্ষা ও সাধারণ সম্পাদক জনাব ইউসুফ আলী, বাংলাদেশী ফ্রেন্ডস অভ লেবার’র সভাপতি জনাব মোস্তফা হাসান ইউসুফ রুশো, ওয়েস্টার্ন রিজিওন বাংলা স্কুলের প্রিন্সিপাল জনাব মোস্তাফা কামাল, কবি ওয়াজিহ্ রাজীব, এসবিএস বাংলা’র (SBS Bangla)মেলবোর্ন প্রতিনিধি জনাব শাহান আলম সহ অনেক একাডেমিক, সাংবাদিক এবং অন্যান্য পেশাজীবী মানুষের উপস্থিতি ছিল উল্লেখযোগ্য।

বৈঠকে বক্তারা রোহিঙ্গাদের দ্রুত নিরাপদে মায়ানমারে তাদের বাড়ীতে ফিরতে দেয়া সহ গণহত্যার বিচার দাবী করেন এবং এই সমস্যায় অস্ট্রেলিয়ান সরকারের সাহায্য বাড়ানোর দিকে নজর দেয়ার কথা বলেন। বিভিন্ন বক্তারা বিশ্বের অন্যতম দরিদ্র দেশগুলোর একটি দেশ হয়েও বাংলাদেশ অনেক সীমাবদ্ধতার মাঝেও ৭ লক্ষ বাস্তুচ্যুত রোহিংগাদের আশ্রয় দিয়ে মানবতার মহান দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে বলে মত দিয়েছেন।


Place your ads here!

Related Articles

সিডনি চেরি ব্লোসম ফেস্টিভ্যালে একদিন

প্রতি বছরের ন্যায় এবারো সিডনির অবার্ন বোটানিক গার্ডেনসে হয়ে গেল চেরি ব্লোসম ফেস্টিভ্যাল। ১৭ই আগস্ট থেকে শুরু হওয়া এই ফেস্টিভ্যাল

ক্যান্সার ও সার্ভিকাল ক্যান্সারের কারণ, প্রতিকার এবং জীবন যুদ্ধে জয়ী একজনের গল্প।

এখন আর আমরা ছোট নেই। বড় হওয়ার সাথে সাথে চিকিৎসাবিজ্ঞান উন্নতি করেছে, চিকিৎসা সেবায় পরিবর্তন এসেছে। কিন্তু তারপরেও, সমগ্র চিকিৎসাবিজ্ঞানে,

বিদায় বাংলাদেশ, ভালো থেকো বাংলাদেশ!

সমাজের নিচুতলার মানুষ হলে, গায়ের রং মলিন হলে, মুখের ভাষায় আঞ্চলিকতার টান থাকলে, বাবার উচ্চ পেশা বা চাকুরী (আমি বলি

No comments

Write a comment
No Comments Yet! You can be first to comment this post!

Write a Comment