আমার অনুভূতিতে পূর্ণিমা

আমার অনুভূতিতে পূর্ণিমা

আজ পূর্ণিমা !! অনেক ছোট থেকেই এই দিনটার প্রতি আমার এক বিশেষ দুর্বলতা! অসাধারন সুন্দর এই গুরুত্বপূর্ণ সময়টাকে মনের গভীরে কবে, কিভাবে গেথে ফেলেছি জানিনা, তবে যত দিন যাচ্ছে এর মহিমা ততই আমার হৃদয়ের অন্তস্থলে আবদ্ধ হচ্ছে ! ছোটবেলার সেই কবিতার লাইন গুলো, বাঁশ বাগানের মাথার ওপর চাদ উঠেছে ঐ, মাগো আমার শোলক বলা…..কই ? আজ এত বছর পরেও মনের মাঝে সেই সুর ভেসে আসে, যদিও এই প্রবাস জীবনে বাশ বাগানের দেখা পাওয়া খুবই কঠিন তবুও মন খুজে বেড়ায় সেই স্মৃতির খাতাকে চারপাশের গাছ গাছালিতে ভরা প্রকৃতির মাঝে!! পূর্ণিমার সৌন্দর্যের মুগ্ধতায় আমি এতই আবেগপ্লুত যে কখনো অন্য কোন কিছুর জন্য এভাবে অপেক্খা করে থাকিনা যেভাবে এই সময়টার জন্য করি!!

ছোটকালে পূর্ণিমার দিন বাসার ছাদে গিয়ে বসে থাকতাম অপরুপ সে দৃশ্য দেখবার জন্য আর এখন চলে যাই সমুদ্রের ধারে, বাগানে এবং পার্কে কিম্বা খোলা আকাশের নীচে !! যতই দেখি ততই অবাক হই, কিভাবে চাদ তার এত সুন্দর রুপ নিয়ে আবির্ভূত হয়, তারপর তার রক্তিম আভা সবার মাঝে ছড়িয়ে দিয়ে ধীরে ধীরে আবার আকাশের কোলে ঘুমিয়ে পড়ে ! আলহামদুলিল্লাহ্ সার্থক জনম আমার !! কদিন ধরে অপেক্খার পর আজ আবার এল সেই দিন! কখন যে সন্ধ্যা হবে সেকথা ভাবতে ভাবতে যখন বাসায় ফিরছি, ফেরার পথে থমকে গেলাম পূর্নিমার চাঁদের অপরুপ দৃশ্য দেখে ! প্রতিবারেই মনে হয় যেন একে নতুন রুপে দেখছি! বাসার বাগানে পৌছে তাড়াহুড়া করে কয়েকটা ছবি তুলে ফেললাম, হাড়িয়ে যেতে দেবনা তোমায় ! তুমি থাকবে আমার মনে আর চোখের সামনে !! তাতেও মন তৃপ্ত না, তারপর চলে গেলাম বাড়ির পাশেই সাগর পাড়ে !! এরপর যে দৃশ্য দেখলাম সেটা ভাষায় প্রকাশ করা অসম্ভব!! মন শুধু বার বার গুন গুনাচ্ছে, , এই সুন্দর পৃথিবী ছেড়ে মন যেতে নাহি চায়, তবুও….. ”

” আবার এটাও মনে হচ্ছে, কেন যে সুকান্ত চাদকে ঝলসানো রুটি বলছে আজও বুঝিনা !! ভোরের আকাশে চাদের এই ডুবে যাওয়ার মুহুর্তে পাখিরাও তাদের কলকাকলিতে এবং হরেক রকম পাখা মেলে হাতছানি দিয়ে ডাকছে কিন্তু চাদ কোন আহ্বানে সাড়া না দিয়ে তার নিয়ম মত সমুদ্রের অতলে ডুবে যাচ্ছে আর বলে যাচ্ছে ” আমি আবার আসছি পূর্ব দিগন্তে….”

Dr Naila Aziz Meeta

Dr Naila Aziz Meeta

Home town is Bangladesh, live in Australia. Love to write, read, travel, and listening to music.


Place your ads here!

Related Articles

Mujibul Huq: As I knew him

On 13th January, I learned with great sadness former Cabinet Secretary Mujibul Huq had passed away in Dhaka. He was

ধলেশ্বরী-6

দিন ক্ষন আজ আর মনে করতে পারছিনা, সম্ভবত নব্বইয়ের শেষের দিকে, মফস্বল থেকে ঢাকাত এসেছি। ঢাকা শহরের অলি গলি তেমন

কয়েক টুকরো ভাবনা

গত কিছুদিন থেকে আমাকে সবচেয়ে বেশি যে প্রশ্ন করা হচ্ছে সেটি হচ্ছে, “ওয়ার্ল্ড কাপে আপনি কোন দলকে সাপোর্ট করেন?” আমি

No comments

Write a comment
No Comments Yet! You can be first to comment this post!

Write a Comment