আমরা কারও সহিংসতা সহ্য করবো না – রাষ্ট্রদূত কাজী ইমতিয়াজ হুসেইন

আমরা কারও সহিংসতা সহ্য করবো না – রাষ্ট্রদূত কাজী ইমতিয়াজ হুসেইন

‘আমরা কারও সহিংসতা সহ্য করবো না’, বললেন অস্ট্রেলিয়ায় নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মান্যবার কাজী ইমতিয়াজ হুসেইন । ক্যানবেরাতে বঙ্গবন্ধুর ৪১তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষ্যে দেওয়া বক্তব্যে তিনি বলেন, বাংলাদশের পরতে পরতে বঙ্গবন্ধু রয়েছে। আর তাই বিভিন্ন্ অপশক্তিরা উঠে পড়ে লেগেছে সবকিছু থেকে বঙ্গবন্ধুর চিহ্ন মুছে ফেলতে। তবে সেই অপ শক্তিকে প্রতিহত করার শক্তি বাংলাদেশের মানুষের রয়েছে। তিনি বলেন, আমাদের সামনে কমিটেড নেতৃত্ব রয়েছে যে নেতৃত্ব বাংলাদেশের অস্তিত্বে বিশ্বাস করে। তিনি বলেন, আমাদের এখন সময় এসেছে সন্ত্রাসবাদের ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে আন্দোলন গড়ে তোলার। সন্ত্রাস দমনে সরকারের ‘জিরো টলারেন্স’ নীতির কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, আমরা কারও সহিংসতা সহ্য করবো না। তিনি জোর দিয়ে বলেন বাংলাদেশে প্রতিটি নাগরিকের সমান অধিকার রয়েছে যেটা কিনা বাংলাদেশের সংবিধান নিশ্চিত করেছে ।

বাংলাদেশের সাম্প্রতিক জঙ্গি হামলার প্রসংগ টেনে তিনি বলেন, শুধু বাংলাদেশেই নয় বিশ্বের অনেক দেশই আজ এধরনের হামলার স্বীকার। এটি বাংলাদেশের জন্যে একটি বিচ্ছিন্ন ঘটনা। তবে এই ধরনের হামলা প্রতিহত করা না গেলে আগামিতে বাংলাদেশে মারাত্মক সমস্যার সৃষ্টি হবে বলে তিনি মনে করেন।

গত ১৪ আগস্ট রবিবার বিকেলে ক্যানবেরায় বাংলাদেশ দূতাবাসে আয়োজন করা হয়েছিল বঙ্গবন্ধুর ৪১তম মৃত্যুবার্ষিকী।  দুতাবাস থেকে জানানো হয় যে  বাংলাদেশ কমুউনিটি যাতে জাতির জনককে জাতীয় শোকদিবসের (১৫ই আগস্ট) শ্রদ্ধা জানাতে রবিবার ছুটির দিনে দুতাবাসে আসতে পারে সে কারনেই ১৪ আগস্টে শোকদিবসের এই আয়োজন। এবারে ১৫ই আগস্ট ছিল সোমবার।

বঙ্গবন্ধুর ৪১তম মৃত্যুবার্ষিকীকে কেন্দ্র করে বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্রমন্ত্রী আর পররাষ্ট্রপ্রতিমন্ত্রী যে বাণী পাঠিয়েছিলেন তা পাঠ করা ছাড়াও শোকদিবসের সেই অনুষ্ঠানে দিনটির তাৎপর্য তুলে ধরে বক্তব্য দেন কেনবেরা, সিডনি ও মেলবোর্ন থেকে আসা অনেকেই।

শোকদিবসের সেই অনুষ্ঠানে একটি প্রামাণ্যচিত্রও দেখানো হয়েছিল যেটি মুলতঃ বঙ্গবন্ধুর শাসন আমল্ কে কেন্দ্র করে বানানো। সেই প্রামাণ্যচিত্রটিতে বঙ্গবন্ধুকে বলতে শুনা যায়-
“..যে কাজে ফাঁকি দেয়, সে দুর্নীতিবাজ।
যে ঘুষ খায়, সে দুর্নীতিবাজ।
যারা কাজে কর্তব্য পালন করে না, তারা দুর্নীতিবাজ…”

আজ থেকে প্রায় ৪৫ বছর আগে বঙ্গবন্ধু এইসব দুর্নীতিবাজদের বিরুদ্ধে বাংলাদেশে সংগ্রাম গড়ে তোলার আহ্বান জানিয়েছিলেন।

স্বাধিনতার ৪৫ বছরেও দেশটির দুর্নীতি কমে নি বরং দুর্নীতিবাজদের সাথে সন্ত্রাসিরা আর জঙ্গিরা মিলে দেশটার অবস্থা এমন নাজেহাল করে ছেরেছে যার কারনে বিশ্বজুরে বাংলাদেশের  শুনাম মুছতে বসেছে- এমন ইঙ্গিতটাই দিচ্ছিলেন অনুষ্ঠানের বিভিন্ন বক্তারা। বক্তাদের অনেকেরই আশঙ্কা দেশ এভাবে চলতে থাকলে অচিরেই দেশের বৈদেশিক মুদ্রার তহবিলে ঘাটতি দেখা যাবে। স্বাধিনতার ৪৫ বছরে বাংলাদেশের বৈদেশিক মুদ্রার তহবিল শুন্য থেকে প্রায় ৪০ বিলিয়ন ডলারে পৌঁছেছে, আর তাই বাংলাদেশের অর্থনৈতিক উন্নতির এই অগ্রগতিকে রুখতে ষড়যন্ত্র করে বাংলাদেশে জঙ্গি হামলা চালানো হচ্ছে বলে অনেকে মত প্রকাশ করেন।


Place your ads here!

Related Articles

এভরি ক্লাউড হ্যাজ এ সিলভার লাইনিং

আমার খুব পছন্দের একটি ইংরেজি ফ্রেজ হলো আমার আজকের লেখাটির শিরোনাম। সাদা বাংলায় বলা যায়, খুব খারাপ অবস্থার মধ্যেও থাকে

বিশ্ব তোলপাড়, ভারত তোলপাড় মোদি আর বিজেপি ক্ষমতায় আসলে কি হবে?

বিশ্ব তোলপাড়, ভারত তোলপাড় মোদি আর বিজেপি ক্ষমতায় আসলে কি হবে? বিশ্বের সর্ববৃহত গনতন্ত্রের দেশ ভারত কি গনতন্ত্রের সহায়তায় এক

বছর ঘুরে বিদ্যার দেবী

সিডনিতে গত ২৯শে জানুয়ারি রোজ বুধবার স্কুলগুলো খুলে গেছে। স্কুল খুলে যাওয়ার পূর্ব প্রস্তুতি হিসেবে স্কুলের পোশাক আর নিত্য প্রয়োজনীয়

No comments

Write a comment
No Comments Yet! You can be first to comment this post!

Write a Comment